মামুনুল কান্ডের মামলায় সোনারগাঁও উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি আব্দুর রউফ গ্রেফতার।

 


সদ্য সংবাদ ডেস্কঃ 

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও হেফাজত নেতাকর্মীদের ভাংচুর ও লুটপাটের ঘটনার মামলায় সোনারগাঁও উপজেলার শম্ভুপুরা ইউনিয়ন বিএনপির সাবেক সভাপতি ও বর্তমান সোনারগাঁও উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি ও শম্ভুপুরা ইউয়নের পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুর রউফ কে  গ্রেফতার করেছে সোনারগাঁও থানা পুলিশ।



সোমবার ১৯ এপ্রিল দুপুরে সোনারগাঁও উপজেলার শম্ভুপুরা ইউনিয়ন পরিষদে অভিযান চালিয়ে  তাকে গ্রেফতার করে আদালতে প্রেরণ করেন।

গত ৩ এপ্রিল বাংলাদেশ হেফাজত ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা মামুনুল হক এক নারীকে নিয়ে সোনারগাঁও রয়েল রিসোর্টে অবকাশ যাপন করতে আসেন। মামুনুল হকের সঙ্গে আসা নারী তার স্ত্রী নয় এমন কথা ছড়িয়ে পড়লে ছাত্রলীগ, যুবলীগের নেতাকর্মী ও এলাকাবাসী তাদের অবরুদ্ধ করে জিজ্ঞাসাবাদ করেন। 

মামুনুল হক অবরুদ্ধের এ খবর ফেসবুক লাইভে ছড়িয়ে পড়লে হেফাজত কর্মীরা রয়েল রিসোর্টে ভাংচুর চালিয়ে তাকে ছিনিয়ে করে নিয়ে যায়। পরে তারা উপজেলা আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়, উপজেলা যুবলীগের সভাপতির ব্যবসা প্রতিষ্ঠান,বাসাবাড়িতে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর লুটপাট করে এবং ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে তান্ডব চালিয়েছে। পরে এসব ভাংচুর, লুটপাটের ও মহাসড়কের তান্ডবের ঘটনায় অংশগ্রহণ কারীদের বিরুদ্ধে সোনারগাঁও থানায় সাতটি মামলা দায়ের করা হয়। গ্রেফতারকৃত আব্দুর রউফ ওই ভাংচুরের মামলায় এজাহারভুক্ত আসামি।

সোনারগাঁও উপজেলার শম্ভুপুরা ইউনিয়ন বিএনপির সাবেক সভাপতি ও বর্তমানে উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি আব্দুর রউফ এর গ্রেফতারের সত্যতা নিশ্চিত করেন সোনারগাঁও থানার (ওসি তদন্ত) খন্দকার তবিদ রহমান।

এসএস/বি


Post a Comment

[blogger]

যোগাযোগের ফর্ম

Name

Email *

Message *

Theme images by merrymoonmary. Powered by Blogger.
Javascript DisablePlease Enable Javascript To See All Widget