সোনারগাঁওয়ে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে যৌথ বাহিনীর অভিযান,নিষিদ্ধ পলিথিন আটক ও জরিমানা।

সদ্য সংবাদ ডেস্কঃ  

নারায়ণগঞ্জ সোনারগাঁওয়ে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে, যৌথ বাহিনী অভিযান চালিয়ে চারটি গোডাউন ও তিনটি দোকান থেকে ৯ হাজার ৩ শত ৫৯ কেজি নিষিদ্ধ পলিথিন জব্দ করেছে। এসময় গোডাউন ও দোকানের তিন মালিককে পৃথক ভাবে মোট ৩ লাখ ২০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। 

আজ মঙ্গলবার (২৫ আগস্ট) সকাল থেকে একনাগাড়ে বিকাল ৩টা পর্যন্ত র‌্যাব-১১, নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিবেশ অধিদপ্তর ও সোনারগাঁও উপজেলা প্রশাসন উপজেলার মোগরাপাড়া চৌরাস্তা কাঁচাবাজারে চারটি গোডাউন ও তিনটি দোকানে এই অভিযান চালায়।

এতে যৌথভাবে নেতৃত্ব দেন, 

র‌্যাব-১১ এর এএসপি মোস্তাফিজুর রহমান, নারায়ণগঞ্জ জেলা পরিবেশ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মোঃ সাইদ আনোয়ার, সোনারগাঁও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আতিকুল ইসলাম ও সোনারগাঁও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আল মামুন।

এসময় ভ্রাম্যমাণ আদালত সরকারের নিষিদ্ধ ঘোষিত পলিথিন অবৈধভাবে গোডাউনে মজুদ ও বিক্রির অপরাধে উপজেলার মোগরাপাড়া চৌরাস্তা কাঁচাবাজারের মোঃ হাবিবের মালিকানাধীন আল আমিন এন্ড ব্রাদার্স নামের একটি দোকান ও তিনটি গোডাউনকে ২ লাখ, মেসার্স হাবিব ষ্টোর নামে একটি দোকান ও একটি গোডাউনের মালিক মোঃ হাবিবকে ১ লাখ ও গাফ্ফার ষ্টোরের মালিক গাফ্ফারকে ২০ হাজার টাকা নগদ জরিমানা করে।

ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন সোনারগাঁও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আতিকুল ইসলাম ও উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আল মামুন।

র‌্যাব-১১ এর এএসপি মোস্তাফিজুর রহমান জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তারা অবৈধভাবে নিষিদ্ধ ঘোষিত পলিথিন মজুদ করা গোডাউনে এই অভিযান চালায়।

তিনি বলেন, জেলার বিভিন্ন স্থানে তারা অবৈধভাবে পলিথিন বাজারজাত করছিলেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জেলা পরিবেশ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক ও সোনারগাঁও উপজেলা প্রশাসনের  ম্যাজিস্ট্রেটদ্বয়ের নেতৃত্বে অভিযান পরিচালনা করা হয়।

অভিযানে নেতৃত্বদানকারী সোনারগাঁও উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা মোঃ আতিকুল ইসলাম বলেন, এরা দীর্ঘদিন ধরে নিষিদ্ধ ঘোষিত পলিথিনের ব্যবসা করে আসছিলেন। নিষিদ্ধ পলিথিন ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে আমাদের অভিযান অব্যাহত থাকবে।


এসএস/বি 

No comments

Powered by Blogger.